বুধবার ২৩ আগস্ট ২০১৭ || সময়- ৮:০৯ am
নিরপেক্ষ নির্বাচনের স্বার্থে সংসদ বাতিলের দাবি খন্দকার মাহবুবের

ইনফরমেশন ওয়াল্ড রাজনীতি নিউজ ডেক্স
চট্টগ্রাম:-----নিরপেক্ষ নির্বাচনের স্বার্থে চলমান সংসদ ভেঙে দেওয়ার দাবি জানিয়েছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন।
তিনি বলেছেন, সংসদ বহাল রেখে কোনো নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্ভব নয়। নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে হলে সংসদ ভেঙে দিতে হবে।
শনিবার (১১ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে খন্দকার মাহবুব এ কথা বলেন। ‘নির্বাচন কমিশনের নিরপেক্ষতা: নির্বাচন সহায়ক সরকার’ শীর্ষক এ সেমিনারের আয়োজন করে জিয়া পরিষদ।
খন্দকার মাহবুব হোসেন বলেন, কোনো সরকার থাকাকালে নিরপেক্ষ নির্বাচন হতে পারে না। কারণ কোনো সরকার ক্ষমতা ছাড়তে চায় না, ক্ষমতার লোভ ছাড়তে পারে না। ক্ষমতা আকড়ে ধরে রাখতে চায়। তাই নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে হলে সংসদ ভেঙে দিতে হবে।
গণতন্ত্র উদ্ধারের জন্য বিএনপি মাঠে নামবে জানিয়ে দলের এ ভাইস চেয়ারম্যান বলেন, একমাত্র বিএনপিই পারে দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে। অন্য কোনো দলের পক্ষে এটি সম্ভব নয়।
তিনি বলেন, বিএনপির দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেছে। পেছনে ফেরার কোনো রাস্তা নেই। তাই বিএনপিকে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। গণতন্ত্র উদ্ধার করতে হবে। গণতন্ত্র, ধর্মীয় মূল্যবোধ ও উন্নয়নের জন্য এগিয়ে যেতে হবে। বিএনপির অনেক নেতাকর্মী হত্যা, গুম ও নির্যাতনের শিকার হয়েছে। নেতাকর্মীদের নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে। আমরা এর প্রতিকার চাই।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের চেয়ারম্যান ড‍া. জাফরুল্লাহ চৌধুরী। 
বিএনপির ১৫ হাজার নেতাকর্মী বিনাবিচারে কারাভোগ করছে দাবি করে তিনি বলেন, অত্যাচার, হত্যা, গুম ও মিথ্যা মামলার মধ্যেও বিএনপি মাঠে টিকে থাকবে। বিএনপি দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনবে। আবারও বিস্ফোরণ ঘটবে।
জিয়া পরিষদের সহকারী মহাসচিব আবদুল্লাহিল মাসুদের সঞ্চালনায় সেমিনারে আরও উপস্থিত ছিলেন- দৈনিক নয়াদিগন্তের সম্পাদক আলমগীর মহিউদ্দিন, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুস্তাহিদুর রহমান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন অনুষদের অধ্যাপক ড. হাসান তালুকদার ও সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা।
তথ্য সূত্র :-বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম